৬ই জুলাই, ২০২২ ইং রাত ৩:০৮
ব্রেকিং নিউজ
অবসরে প্রশান্তি পেতে ঘুরে আসতে পারেন পর্যটন নগর ভোলার চরফ্যাশনে ভোলার ভেদুরিয়ায় ব্যবসায়ীর ভোগ দখলীয় জমি যবর দখল করারা চেষ্টা চালাচ্ছে ভূমিদস্যুরা দৌলতখানের নেয়ামতপুরে আওলাদ চেয়ারম্যানের অত্যাচার থেকে রক্ষা পেতে মানববন্ধন করেছে চরবাসী পদ্মা সেতু দেখতে গিয়ে ট্রলার ডুবিতে নিহত চরফ্যাশনের তামিমের দাফন সম্পন্ন ভোলায় নানা আয়োজনের মধ্য দিয়ে  আওয়ামীলীগের  প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত বসুন্ধরা মিডিয়া অ্যাওয়ার্ড পাওয়ায় সাংবাদিক হাবিবুর রহমানকে ভোলা প্রেসক্লাবের পক্ষ থেকে সংবর্ধনা বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ মাটি ও মানুষের দল-ভোলায় এমপি শাওন দৌলতখানে নানা আয়োজনের মধ্য দিয়ে আওয়ামীলীগের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত এমপি শাওনের নেতৃত্বে ৫টি লঞ্চে ১০ হাজার মানুষ যাবে পদ্মা সেতুর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে ভোলা প্রেসক্লাব সভাপতি হাবিবুর রহমানকে জেলা প্রশাসকের পক্ষ থেকে সংবর্ধনা

ভোলার মেঘনা নদীতে ডেঞ্জার জোনের নিষেধাজ্ঞা উপেক্ষা করে চলছে ঝূঁকিপূর্ণ নৌযান

Reporter Name
  • Update Time : Thursday, September 9, 2021,
  • 154 Time View

এমডি. রাসেল, বিশেষ প্রতিনিধি। ক্রাইম বিডি।

ভোলা থেকে বিভিন্ন রুটে নিষেধাজ্ঞা উপেক্ষা করে মেঘনা নদীর ডেঞ্জার জোনে চলছে ঝূঁকিপূর্ন নৌযান। প্রতিদিন এসব রুট দিয়ে জীবনের ঝূঁকি উত্তাল মেঘনা পাড়ি দিচ্ছেন হাজার মানুষ। ঝূঁকিপূর্ন পারাপারে কারনে নৌ দুর্ঘটনা আশংকা থাকলেও স্থানীয় প্রশাসন অবৈধ নৌযান বন্ধ করতে পারছে না। যারফলে নিয়ম-নীতির তোয়াক্কা না করেই উত্তাল মেঘনা নদীতে যাত্রী পারাপার করছে ছোট ছোট ট্রলার ও লঞ্চে করে। এতে করে যে কোন সময় বড় ধরনের নৌ দুর্ঘটনার আশংকা রয়েছে।

সরকারি নিয়ম অনুযায়ী মার্চ থেকে অক্টোবর পর্যান্ত ৮ মাস ভোলার মেঘনার ১৯০ কিলোমিটার এলাকাকে ডেঞ্জারজোন হিসেবে চিহ্নিত করা হয়েছে। সি-সার্ভে ছাড়া সকল ধরনের অনিরাপদ নৌযান চলাচলে নিশেধাজ্ঞাজারী রয়েছে। এই নিষেধাজ্ঞা উপেক্ষা করে ভোলা জেলার উপকূলের বিভিন্ন এলাকায় দিয়ে চলছে ফিটনেস ও অনুমোদনবিহীন ছোট ছোট লঞ্চ ও ইঞ্জিন চালিত ট্রলার। দু’একটি রুটে সি-ট্রাক কিংবা সমুদ্র পরিবহণ অধিদপ্তরের ছাড়পত্রপ্রাপ্ত লঞ্চ থাকলেও বেশীরভাগ রুটেই ফিটনেসবিহীন লঞ্চ আর ইঞ্জিন চালিত নৌকায় করে যাত্রীদের চলাচল করতে হচ্ছে। বিশেষ করে ভোলার ইলিশা থেকে লষ্মীপুরের মজুচৌধুরীর হাট, দৌলতখান-মির্জাকালু থেকে চর জহিরুদ্দিন ও ল²ীপুরের আলেকজ্যান্ডার-রামগতি, তজুমদ্দিন ও চরফ্যাশন থেকে মনপুরা এবং মুজিবনগর, কুকরী-মুকরী, ঢালচর, পটুয়াখালীর বাউফলসহ বিভিন্ন চরাঞ্চল ও উপ-দ্বীপগুলোতে চরম ঝুঁকি নিয়ে গাদা-গাদি করে যাতায়াত করছে এসব এলাকার কয়েক লাখ মানুষ। ভোলার সাথে দক্ষিনাঞ্চলের জেলাগুলোর সাথে যোগাযোগের একমাত্র মাধ্যম নৌপথ হওয়ায় প্রয়োজনের তাগিদে নদী পথেই যাতায়াত করতে হয় যাত্রীদের। কিন্তু বিকল্প ব্যবস্থায় প্রয়োজনীয় সংখ্যক নিরাপদ লঞ্চ ও সি ট্রাক নেই। তাই বাধ্য হয়ে যাত্রীরা ঝূকিপূর্ন ট্রলার, ইঞ্জিন নৌকা, ফিটনেস বিহীন ছোট ছোট লঞ্চে মেঘনা নদীর ডেঞ্জার জোন পারি দিচ্ছে হাতের মুঠোয় জীবন নিয়ে। তবে সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা বলছেন, অনিরাপদ লঞ্চ চলাচল বন্ধে কার্যকরী ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
© All rights reserved © 2019 LatestNews
Theme Dwonload From Ashraftech.Com
AshrafTech